Sunday, মে ১৯, ২০২৪
শিরোনাম

রানীনগর ইয়ং সোসাইটি ক্লাবের করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে বিভিন্ন কার্যক্রম

শেয়ার করতে এখানে চাপ দিন

গোলাম মাহবুব ও বিল্লাল মোল্লা : করোনা ভাইরাস থেকে রক্ষায় প্রতিকারের চেয়ে প্রতিরোধ সর্বোত্তম। এই প্রতিরোধের মাধ্যম হচ্ছে মানুষের মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধি করা, সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে সবাই যে যার ঘরে থাকা।
সমাজের এই কাজগুলো করার জন্য এগিয়ে এসেছে পাবনা জেলার সুজানগর উপজেলার রানীনগর গ্রামের “রানীনগর ইয়ং সোসাইটি ক্লাব” এর একদল তরুণ কর্মঠ যুবকেরা। তারা তাদের দলনেতা সবুজ হাসান তানজিল এর উদ্যোগে তাদের এলাকায় করোনা ভাইরাস (COVID-19) প্রতিরোধে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে গ্রামের বিভিন্ন জায়গায় সরকার অনুমোদিত ঔষধের দোকান ও মুদিখানা দোকানের সামনে ৩ ফিট দূরত্ব বজায় রেখে বৃত্ত একে দেয়। যাতে সমাজের মানুষ বৃত্ত দেখেও দূরত্ব বজায় রাখতে পারে। এছাড়াও প্রশাসনের সহায়তায় ক্লাবের সদস্যদের সংগে নিয়ে গ্রামের লোকজন যাতে বিনা করণে বাইরে বের না হয় সেজন্য বিভিন্ন রাস্তা বন্ধ করে গ্রামে পাহারা বসায়। এতে করে গ্রামের মানুষ যেমন বিনা কারণে বাইরে বের না হয় সেদিকে নজরদারি জোরদার করে এবং জরুরী প্রয়োজনে বাইরে বের হওয়া মানুষ ক্লাবের সদস্যদের মাধ্যমে সহযোগিতা করে যাতায়াতের ব্যবস্থা করে দেয়। রাস্তা বন্ধ করলেও গ্রামের রোগী, রোগী বহনকারী গাড়ী, চিকিৎসক, নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্র বহনকারী গাড়ি চলাচলে যাতে অসুবিধা না হয়, সেদিকে সর্বদা নজরদারি জোরদার করেছে তরুণ যুবকেরা। ৯ এপ্রিল “রানীনগর ইয়ং সোসাইটি ক্লাবের” উদ্যোগে তাদের এলাকায় রাস্তাঘাট, বাজার পরিস্কার পরিচ্ছন্ন করে জীবানু নাশক স্প্রে করা হয়।
ক্লাবের দলনেতা সবুজ হাসান তানজিল বলেন, “আমরা সরকারিভাবে কোন সহযোগিতা পাই নাই। দেশের এই ক্রান্তিলগ্নে দেশকে ভালোবেসে আমাদের সাধ্যমত সেবা প্রদানের চেষ্টা করে যাচ্ছি। করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় সরকারের যে কোন কাজে সহযোগিতা করতে আমরা সদা প্রস্তুত আছি।”

শেয়ার করতে এখানে চাপ দিন

সর্বশেষ খবর